নারীসহ মামুনুল হককে রিসোর্টে ঘেরাও, ছাড়িয়ে নিয়ে গেল হেফাজত কর্মীরা

Mamunul Hoq

ডেস্ক রিপোর্ট
বিসিবিনিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম

রাজধানীর অদূরে সোনারগাঁয়ের রয়্যাল রিসোর্টে নারীসহ অবরুদ্ধ হেফাজত নেতা মামুনুল হককে ছিনিয়ে নিয়েছেন সংগঠনটির কর্মীরা। রয়্যাল রিসোর্ট থেকেই শনিবার সন্ধ্যায় তাকে স্থানীয় একটি মসজিদে নিয়ে যায় ধর্মভিত্তিক সংগঠনটির নেতাকর্মীরা।

জানা যায়, মামুনুল হককে অবরুদ্ধ করা হয়েছে এমন খবর ছড়িয়ে পড়ার পরই হেফাজতের হাজারও কর্মী মিছিল নিয়ে রিসোর্টটিতে যান। তারা রিসোর্টে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাঙচুর চালায়। একপর্যায়ে মামুনুল হককে উদ্ধার করে পাশের একটি মসজিদে নিয়ে যান।

এর আগে রিসোর্টটিতে মামুনুল হককে অবরুদ্ধ করার পর পুলিশের ঊর্ধতন কর্মকর্তারা সেখানে যান।

পুলিশ বলছে, মামুনুলের একজন নারীসহ এখানে অবস্থানের খবর পেয়ে স্থানীয় কিছু লোকজন, ছাত্রলীগ-যুবলীগের নেতা-কর্মীরা তাঁর কক্ষটি ঘেরাও করেন।

আর মামুনুল হক বলছেন, দ্বিতীয় স্ত্রীসহ অবকাশযাপনে গেলে কিছু লোক তাঁকে নাজেহাল করে। স্ত্রীকে নিয়ে তিনি সেখানে ঘুরতে গিয়েছিলেন।

ঘটনার কয়েকটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। এতে দেখা যায়, কিছু লোক ওই রিসোর্টের কক্ষে গিয়ে মামুনুল হককে আটকে রেখে জিজ্ঞাসাবাদ করছেন। মামুনুল হককে তার সঙ্গে থাকা নারীর বিষয়ে বিভিন্ন প্রশ্ন করছেন।

মামুনুল হক দাবি করছেন, সঙ্গে থাকা নারীকে তিনি দুই বছর আগে বিয়ে করেছেন। অবসর সময় কাটাতে তিনি সেখানে যান।

অবরুদ্ধ হওয়ার পর সোনারগাঁ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) তবিদুর রহমান বলেন, মামুনুল হক একজন নারীকে নিয়ে উঠেছেন, এই খবর পেয়ে এলাকার লোকজন ও ছাত্রলীগ-যুবলীগের কিছু নেতা-কর্মী তাঁর কক্ষটি ঘিরে রাখেন। খবর পেয়ে পুলিশও আসে। উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) এখানে রয়েছেন। পুলিশ সুপারসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারাও এসেছেন।
সুত্র : ঢাকা টাইমস

এই পোর্টালে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।




এই পাতার আরও সংবাদ